মঙ্গলবার   ২০ আগস্ট ২০১৯   ভাদ্র ৪ ১৪২৬   ১৮ জ্বিলহজ্জ ১৪৪০

নওগাঁ দর্পন
সর্বশেষ:
ঠাকুরগাঁওয়ে দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে প্রাণ গেল ৮ জনের রাণীনগরে গোয়াল ঘরের তালা ভেঙ্গে কৃষকের ৫টি গরু চুরি পোরশায় বিদ্যুৎস্পৃষ্টে দুই বছরের শিশুর মৃত্যু রাণীনগরে মশক নিধন ও পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রম উপলক্ষে র‍্যালী ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত নওগাঁয় তরুন তরুনীদের সম্মেলন অনুষ্ঠিত গনসচেতনতা সপ্তাহ উপলক্ষে নওগাঁ সদর মডেল থানা পুলিশের র‌্যালী সাপাহারে জনসচেতনতা সপ্তাহ উপলক্ষে র‌্যালী ও আলোচনা সভা রাণীনগরে গাঁজাসহ আটক ২ নওগাঁ ১১ জনের ডেঙ্গু সনাক্ত, ৮ জন চিকিৎসাধীন আত্রাই থানা পুলিশের সচেতনতা মূলক র‌্যালি অনুষ্ঠিত ধামইরহাটে গনসচেতনতা দিবস উপলক্ষে র‍্যালী অনুষ্ঠিত সাপাহারে জনসচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে মশক নিধন লিফলেট বিতরণ ৬ দফা দাবিতে নওগাঁ প্রেসক্লাবে হেযবুত তওহীদের সংবাদ সম্মেলন মান্দায় ‘মাদক ও ইভটিজিং সচেতনতা কার্যক্রম’র আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত
৫৮

যশোরে প্রেমিকের প্রতারণায় কলেজছাত্রীর করুণ পরিণতি

ডেস্ক নিউজ

প্রকাশিত: ১৯ জুলাই ২০১৯  

প্রেমিকের প্রতারণার শিকার হয়ে যশোরে এক কলেজছাত্রীর করুণ মৃত্যু হয়েছে। বিয়ের প্রলোভনে ওই ছাত্রীর সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক গড়ে তোলেন সৈয়দ শামীম নামে এক যুবক। এতে মেয়েটি অন্তঃস্বত্ত্বা হয়ে পড়লে শামীম তাকে বিয়ে না করে পালিয়ে যায়। পরে গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়লে মেয়েটিকে হাসপাতালে ভর্তির পর শুক্রবার সকালে তার মৃত্যু ঘটে।

এ ঘটনায় নিহত কলেজছাত্রীর বাবা কোতয়ালী থানায় মামলা করলে পুলিশ অভিযুক্ত শামীমের ভাই নাসিমকে আটক করেছে। তবে শামীম পালিয়ে যাওয়ায় তাকে এখনও আটক করতে পারেনি।

পুলিশ জানায়, সহপাঠী নাসিমের বড়ভাই উপশহর এস ব্লকের বাসিন্দা সৈয়দ শামীমের সঙ্গে প্রেমে জড়িয়ে পড়েন ওই ছাত্রী। বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে তার সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক গড়ে তোলেন শামীম। একপর্যায়ে ছাত্রী জানতে পারেন, তিনি অন্তঃস্বত্ত্বা। তখন শামীমকে বিয়ে করার জন্য অনুরোধ করেন। কিন্তু শামীম এতে রাজি না হয়ে গা-ঢাকা দেন। এদিকে  ওই ছাত্রী গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়লে গত বুধবার তাকে একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে তাকে দু'দফা অস্ত্রপচারের পর রাখা হয় আইসিইউতে। পরে শুক্রবার সকালে তিনি মারা যান।

নিহতের মামা ফিরোজ আহমেদ ও স্থানীয় ইউপি সদস্য এহসান উল্লাহ  বলেন, আমার ভাগনি খুবই সহজ-সরল ও ভদ্র মেয়ে। তাকে মিথ্যা প্রলোভন দেখিয়ে প্রেমের ফাঁদে ফেলে শামীম। তারপর বিয়ে না করে পালিয়ে যায়। এরপর অসুস্থ হয়ে তার মৃত্যু হয়।

এ বিষয়ে ওই ছাত্রীকে চিকিৎসা প্রদানকারী গাইনি বিশেষজ্ঞ ডা. নার্গিস আক্তার  বলেন, জরায়ুর পরিবর্তে তার পাশের নাড়িতে বাচ্চা হয়। তাকে দু'দফা অস্ত্রপচারও করা হয়। কিন্তু বয়স কম হওয়ায় এবং প্রাথমিক পর্যায়ে চিকিৎসকের পরামর্শ গ্রহণ না করায় পরে পর্যাপ্ত চিকিৎসা দিয়েও তাকে বাঁচানো যায়নি।

যশোর কোতয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সমীর কুমার সরকার জানান, ছাত্রীর মৃত্যুর ঘটনায় তার বাবা বাদি হয়ে কোতয়ালি থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করেছেন। এতে শামীম ছাড়াও তার ভাই ও বাবাকে অভিযুক্ত করা হয়েছে। ইতিমধ্যে পুলিশ শামীমের ভাই নাসিমকে আটক করেছে। শামীমকেও আটকে চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

এদিকে শুক্রবার দুপুরে যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ওই ছাত্রীর ময়নাতদন্ত সম্পন্ন হয়েছে।

স/শাহা

নওগাঁ দর্পন
নওগাঁ দর্পন
এই বিভাগের আরো খবর