ব্রেকিং:
পোরশার হাপানিয়া সীমান্ত থেকে সাত বাংলাদেশীকে আটক করেছে ভারতের সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফ

রোববার   ১৭ নভেম্বর ২০১৯   অগ্রাহায়ণ ৩ ১৪২৬   ১৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪১

নওগাঁ দর্পন
সর্বশেষ:
ধামইরহাটের আগ্রাদ্বিগুন বাজারে সড়ক দুর্ঘটনায় ২ পুলিশ নিহত ধামইরহাটের গকুল গ্রাম থেকে গলায় ফাঁশ দেওয়া এক যুবকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ পত্নীতলায় আদিবাসী প্রেমিক যুগলের লাশ উদ্ধার চাকুরির প্রলোভনে মান্দার মেয়েকে ঢাকায় ধর্ষণ বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের বহরে যুক্ত হওয়া বোয়িং (৭৮৭-৮) ড্রিমলাইনার গাঙচিল উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ধামইরহাটে মাদক সেবনের দায়ে ৬ জনের জেল ও জরিমানা আত্রাইয়ে ডেঙ্গু সচেতনতা মূলক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষায় সাপাহারে পরিস্কার অভিযান সাপাহার ঐতিহ্যবাহী জবই বিলে মাছের পোনা অবমুক্ত আত্রাই থানা পুলিশের অভিযানে ৯জন আটক গ্রেনেড হামলার প্রতিবাদে নিয়ামতপুরে আলোচনা সভা সাপাহারের করল্যা চাষে বিপ্লব
১২১

ব্যক্তিগত উদ্যোগে চাল বিতরণ করলেন ইউপি চেয়ারম্যান

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ৪ নভেম্বর ২০১৯  

নওগাঁর নিয়ামতপুরে ভাবিচা ইউনিয়নের ইউপি চেয়ারম্যান ওবাইদুল হক তার নিজস্ব ব্যক্তিগত তহবিল থেকে বাজার হতে চাল ক্রয় করে সে চাল দুঃস্থ অসহায় ভিজিডি ভাতাভোগীদের মাঝে বিতরণ করে মহানুভবতার পরিচয় দিলেন। তার এ মহানুভবতায় খুশী ভিজিডি কার্ডধারিরা।

সোমবার তিনি ইউনিয়ন পরিষদ কমপ্লেক্স ভবনে ভাবিচা ইউনিয়নের অক্টোবর মাসের বরাদ্দ ৩১৭ জন অসহায় দুঃস্থ ব্যক্তির (প্রতিজন ৩০ কেজি) মাঝে ভিজিডি’র এ চাল বিতরণ করেন।

উল্লেখ্য, গত ২৯ অক্টোবর ভাবিচা ইউনিয়নের জন্য বরাদ্দকৃত মোট (৩১৭ বস্তা) ৯ হাজার ৫১০ কেজি ভিজিডি চাল সুবিধাভোগীদের মাঝে বিতরণের জন্য ৩০ অক্টোবর শিবপুর খাদ্যগুদাম হতে আনার পথে চাল বহনকারী ট্রাকটরটি ছাতড়া-গাবতলী রাস্তার ধর্মপুর বিলসিংড়া মুক্তিযোদ্ধা মোড়ে পৌঁছলে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে তা উল্টে পুকুরের পানিতে পড়ে যায়। এতে ওই পুকুরের পানির নীচে তলীয়ে যায় ৩১৭ বস্তা চাল।

ফলে নির্ধারিত তারিখে চাল না পেয়ে বিমূখ হয়ে বাড়ী ফিরে যায় ভিজিডি কার্ডধারীরা। সৃষ্ট ঘটনায় অনিশ্চি হয়ে পড়ে ভিজিডির বরাদ্দের চাল। দুঃশ্চিন্তায় পড়ে যান কর্মক্ষম সুবিধাভোগীরা।

ব্যক্তিগত তহবিল থেকে চাল কিনে বিতরণের ঘটনায় ভাবিচা ইউনিয়নের ইউপি চেয়ারম্যান ওবাইদুল হক জানান, “ওই সড়ক দুর্ঘটনায় ভিজিডির বরাদ্দকৃত সাড়ে ৯ টন চাল (৩১৭ বস্তায় ৯ হাজার ৫শ ১০ কেজি) পানির নীচে তলীয়ে যায়। পরবর্তীতে চালগুলো উদ্ধার করে শুকানো হলেও দেখা গেছে সেগুলো খাবারের অনোপযোগী হয়ে পড়ে। ওই চাল পেটে গেলে স্বাস্থ্যঝুঁকিতে পড়তে পারে মানুষ। এসব ভেবে ও গরীব মানুষগুলোর কথা চিন্তা করেই আমি সরকারি বরাদ্দের অপেক্ষায় না থেকে আমার ব্যক্তিগত তহবিল দিয়ে বাজার হতে চাল কিনি এবং সে চাল দূস্থ্যদের মাঝে বিতরণ করি।

আমি সুবিধাভোগী মানুষগুলোর পেটের কথা ভেবে, তাদের মাঝে চাল বিতরণ করতে পেরে নিজেকে আত্মতৃপ্ত মনে করছি।”

ইউএনও জয়া মারীয়া পেরেরা জানান, “ইউপি চেয়ারম্যান ওবাইদুল হক উদ্ভুত পরিস্থিতি মোকাবেলায় তার ব্যক্তিগত তহবিল হতে বাজার থেকে চাল কিনে তার উপস্থিতিতে সে চাল সুবিধাভোগীদের মাঝে বিতরণ করেছেন।

স/শাহা

নওগাঁ দর্পন
নওগাঁ দর্পন
এই বিভাগের আরো খবর