শনিবার   ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০   ফাল্গুন ১৬ ১৪২৬   ০৫ রজব ১৪৪১

নওগাঁ দর্পন
১৫১

‘একলা চলো’ নীতিতে জামায়াত, বিএনপি নিয়ে মাথাব্যথা নেই নেতাদের!

ডেস্ক নিউজ

প্রকাশিত: ৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯  

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ব্যাপক ভরাডুবির পর একেবারেই মাঠে নেই ২০ দলীয় জোটের অন্যতম শরিক জামায়াত ইসলামী। এমনকি জোটের প্রধান শরিক বিএনপির কোনো কর্মসূচিতে থাকছেন না দলটির নেতারা। জানা গেছে, আপাতত ‘একলা চলো’ নীতিতে চলছে জামায়াতের রাজনীতি।

এদিকে প্রকাশ্য রাজনীতির বাইরে গিয়ে হলেও বিএনপি চাইছে জামায়াতের সঙ্গে সম্পর্ক টিকিয়ে রাখতে। রাজনৈতিক পরিস্থিতি স্বাভাবিকে আসলে তখন এ নিয়ে বিস্তর ভাবার সুযোগ পাওয়া যাবে। আর তাই বিএনপি ও ২০ দলীয় জোট নেতারা বলছেন, জামায়াতকে বাদ দেওয়া হয়নি, জামায়াত জোটেই আছে। জোট থেকে বাদ দেয়ার বিষয়ে দলের বৈঠকে এখনও কোনো প্রকার আলোচনাও হয়নি। সেরকম কোনো কিছু হলে আনুষ্ঠানিকভাবেই জানানো হবে। তবে বিএনপির এই অবস্থান নিয়ে জামায়াতের কোনো মাথাব্যথা নেই। আপাতত তারা একা থাকতে চায়।

জামায়াতকে বিএনপি ধরে রাখলেও জামায়াত বিএনপিকে ধরে আছে কিনা সে বিষয়ে ২০ দলীয় জোটের সমন্বয়ক ও বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান বলেন, নির্বাচন পরবর্তীতে প্রকাশ্যে সভা-সমাবেশে জামায়াত আসছে না। বর্তমান রাজনৈতিক পরিস্থিতিতে জামায়াত প্রকাশ্যে কর্মকাণ্ড চালাচ্ছেও না। ২০ দলের অভ্যন্তরে জামায়াতের জায়গা আছে, সেই জায়গা ধরে রাখবে কিনা সেটি জামায়াতের সিদ্ধান্ত। এ নিয়ে আপাতত জামায়াত কিছু বলছে না। বিষয়টি পর্যবেক্ষণে রেখেছে জোট।

এলডিপির সভাপতি কর্নেল (অব) অলি আহমদ বলেন, আমরা জোটেই আছি। তবে জোটের কার্যক্রম অনেকদিন ধরেই নেই। জামায়াতও ওভাবে প্রকাশ্যে নেই। তবে বিএনপি জামায়াতকে ছাড়েনি। জামায়াতের অবস্থানটা স্পষ্ট হলেই বোঝা যাবে জোটে তাদের অবস্থান কোনদিকে যাচ্ছে।

এদিকে জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় নির্বাহী পরিষদের সদস্য মাওলানা আবদুল হালিম বলেন, জামায়াতে ইসলামী ২০ দলীয় জোটেই আছে। বিএনপির কর্মসূচিতে কেন যাচ্ছে না জামায়াত- এমন প্রশ্নে তিনি বলেন, জামায়াতের সব জায়গায় যাওয়াতে কিছু সীমাবদ্ধতা আছে। কী সীমাবদ্ধতা জানতে চাইলেও তিনি তা এড়িয়ে গিয়ে বলেন, জোট বিষয়ক বিস্তারিত আলাপ বিএনপি নেতারা ভালো বলতে পারবেন। জামায়াত আপাতত জামায়েতের মতোই আছে। এ নিয়ে আপাতত কথা না বলি।

নওগাঁ দর্পন
এই বিভাগের আরো খবর